কিছু কথা

আলসে দুপুরে, ক্লান্ত মন

একলা ঘরে দেখা দিল মোর সুজন

মিঠে বাতাস এল বয়ে……এলোমেলো চুলের আড়ালে, শান্ত দুটো চোখ

হাজার প্রশ্ন যেন আছে লুকিয়ে??

আলতো স্পর্শ, আলগা অভিমান

স্পর্শকাতর প্রদীপ কি আজ ম্রিয়মাণ??

কিছু বলার ছিল?

তারপর ক্ষণিকের নিস্তব্ধতা……

ভাবলেশহীন দুটি চোখে আদুরে সরলতা

অচিন্তের ওপারে নই তো সঙ্গোপনে

কি চাও তুমি??…… ভালবাসতে??

অভিমান মুছিয়ে আবার অকুলে ভাসতে

হয় তো তাই!! দূরে গিয়ে ফিরে আসি ও মুখখানি চেয়ে

মনে তারই ছবি আঁকি নিরবে

এক ফোঁটা জল পড়ল ঝরে

ধোঁয়াশা গুলো যেন ক্রমে যায় সরে

শহুরে উষ্ণতার মিঠে ছোঁওয়া

দুরন্ত এক  ভালবাসা নতুন করে ফিরে পাওয়া।।

 

 

 

 

Advertisements

Little pains

The little leftovers, he nimbled upon

Tiresome was his days, half a roti he harped on…

Long are his searches, but he gathers no moss

Nukkars and gullies he moves in

Pecks for dreams in each dustbins

What he searches?

A li’l bits of papers, coloured boxes, plastics and leftovers

Or the limitless positive hopes?… through each scrapss he hovers

Night falls, he slops down…..

Countless stars a crescent moon; Decent and big is his room

Sacks is his pillow, comfy as cushions

Lullabies are sang by the trains in motion.

There was a fight he remembers

Sulked in his mothers arm, baby he was;

Father perished in the riot leaving the family in deep sombre

A step in this urban city tagged them as ‘Refugee’

Pennyless, moulded in rags they were set free

Roads similar to mezannine, sky are the archdomes,

Scrap sacks are now his dream, Rag-picker his name is Rahim

Many a Rahim lost their childhoods

Durst in cruel fights, innocence lost before rudes

Gliding on skyhighs, we never peep

Basest thing gets ignored, as we love big leaps

Will the  cries of Rahims’  fall mum??

Question a big Question makes me calm….

By : Moumita Dasgupta

নতুন কিছু ইচ্ছে

খোলা খাতার ওপর রঙিন এক আকাশ

আছরে যদি পরে?

মেঘের কলম রামধনুতে ডুবিয়ে

সৃষ্টি যদি বেঁচে ওঠে হঠাৎ করে?

যদি গাছের মত সজিব হতো আমার কাব্য?

নদীর মতো কলকলিয়ে সেদিন সব্বাই হাসব

মুক্ত বাতাসে সব রঙ যদি উড়িয়ে দিতে পারতাম

পাহাড়ের গায়ে আঁচর কেটে দিনগুলো পার করতাম

ঝর্ণার মতো দাপট নিয়ে হেথায় হথায় ফিরতাম

ফুলের গন্ধ মনে মেখে সুবাস ছরিয়ে দিতাম

নতুন কাব্যে অচেনা এই পৃথিবী দেখে অবাক হবেন অনেকে

বিষাক্ত এক জীবনের অভ্যাস তোমার আমার

রঙিন এই বাঁচার রসদ সত্যি আনতে পারে জোয়ার

যদি বাঁচতে চাও আবার রঙিন যদি করতে চাও প্রাণ

দু হাত মেলে আঁকরে ধরো সবুজ আঙ্গন

যান্ত্রিক গতি থামিয়ে ফিরে এসো পুরনো হিসেবে

খাতায় বন্দি নড়বড়ে এই জীবনে হারানো হাসিগুলো নতুন করে ফিরে পাবে…